Saturday, May 18, 2024

স্বরূপে ফিরেছে চৈত্র

স্বরূপে ফিরেছে চৈত্র। সকালটা মৃদু তাপপ্রবাহ থাকলেও দুপুরে যা পরিণত হয় কাঠফাটা রোদে। আগামী তাপমাত্রা সর্বোচ্চ ৪০ ডিগ্রি পৌঁছাতে পারে পারে বলে জানিয়েছেন আবহাওয়া অধিদপ্তরের সংশ্লিষ্টরা।

আবহাওয়া অধিদপ্তর বলছে, দেশের ১৮ জেলায় এমন তাপপ্রবাহ ছড়িয়ে পড়েছ। বেলা একটু গড়ালেই রোদের তাপ যেন প্রখর হতে শুরু করে। আগামী এক সপ্তাহ গরমের তীব্রতা কমার সম্ভাবনা নেই। বরং দেশের বিভিন্ন স্থানে যে মৃদু তাপপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে, তার তীব্রতা বেড়ে মাঝারি থেকে তীব্রে পরিণত হতে পারে। সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছুঁতে পারে ৩৮ থেকে ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াস। কোথাও কোথাও হালকা বাতাস বইলেও তাতে গরমের তীব্রতা কমছে না।

আবহাওয়া অধিদপ্তরের আবহাওয়াবিদ শাহিনুর ইসলাম বলেন, এক সপ্তাহের মধ্যে দেশের বেশির ভাগ এলাকায় মেঘ-বৃষ্টির সম্ভাবনা কম। তবে কয়েকটি এলাকায় বিচ্ছিন্নভাবে দমকা হাওয়াসহ বৃষ্টি হলেও তা কম সময় স্থায়ী হবে। ফলে গরমের তীব্রতা রয়ে যেতে পারে।

থার্মোমিটারের পারদ যদি ৩৬ থেকে ৩৮ ডিগ্রি সেলসিয়াসে ওঠে, আবহাওয়াবিদরা একে মৃদু তাপপ্রবাহ বলেন। উষ্ণতা বেড়ে ৩৮ থেকে ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াস হলে একে মাঝারি তাপপ্রবাহ বলা হয়। তাপমাত্রা ৪০ ডিগ্রি ছাড়ালে ধরা হয় তীব্র তাপপ্রবাহ।

গতকাল শুক্রবার দেশের সবচেয়ে বেশি তাপমাত্রা ছিল চুয়াডাঙ্গায় ৩৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

এ ছাড়া টাঙ্গাইল, ফরিদপুর, রাজশাহী, পাবনার ঈশ্বরদী, বগুড়া, চট্টগ্রামের সন্দ্বীপ, রাঙামাটি, ফেনী, বান্দরবান, খুলনা, মোংলা, সাতক্ষীরা, যশোর, কুমারখালী, পটুয়াখালীর খেপুপাড়া ও ভোলায় সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩৬ ডিগ্রি সেলসিয়াসের বেশি ছিল। রাজধানীতে এ দিন সর্বোচ্চ তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ৩৬.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এদিন দেশের কোথাও বৃষ্টির খবর পাওয়া যায়নি।

এদিকে তীব্র গরমে রাজধানীসহ দেশের বেশিরভাগ এলাকায় মানুষের কষ্ট বেড়েছে। বিশেষ যেসব এলাকায় গাছপালা ও জলাশয় নেই, সেখানে গরমের তীব্রতা অন্য এলাকার তুলনায় বেশি।

- Advertisement -spot_img

আরো পড়ুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisement -spot_img

সর্বশেষ খবর