Sunday, May 26, 2024

বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় স্থাপনে অনুমতি লাগবে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের

স্টাফ রিপোর্টার: বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় (বাংলা ও ইংরেজি) নিবন্ধন বিধিমালা-২০১১ সংশোধনের উদ্যোগ নিয়েছে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়। এ বিধিমালা কার্যকর হওয়ার পর থেকে বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় সমূহের নিবন্ধন ও পাঠদানের জন্য সরকারের (প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়) অনুমতি নিতে হবে। গত ১৩ এপ্রিল এ সংক্রান্ত এক সভা মন্ত্রণালয়ের সচিব ফরিদ আহাম্মদের সভাপতিত্বে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে অনুষ্ঠিত হয়।

সভায় জানানো হয়, ২০১১ সালে বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়সমূহকে নিবন্ধনের আওতায় আনতে একটি টাস্কফোর্স গঠন করা হয়। টাস্কফোর্স নিবন্ধন সংক্রান্ত যে সুপারিশ করে তা কিছুটা জটিল ও দীর্ঘসূত্রিতামূলক মনে হয় শিক্ষা সংশ্লিষ্ট বিশেষজ্ঞগণের কাছে। ফলে এই বিধিমালা প্রণীত হলেও যথার্থ সক্রিয়ভাবে কার্যকর হয়নি। ইত্যবসরে ব্যাঙের ছাতার মতো গজিয়ে গেছে সারাদেশে কিন্ডারগার্টেন, বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও ইবতেদায়ী মাদ্রাসা। সংশ্লিস্ট সূত্রে জানা গেছে, কিন্ডারগার্টেনগুলো শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে উচ্চহারে বেতন আদায় ও কোমলমতি শিশুদের ওপর বইয়ের বিশাল বোঝা চাপিয়ে দেয়। এতে করে শিক্ষা প্রীতি ও আনন্দের পরিবর্তে শিশুর কাছে ভীতি ও আতংকের বিষয় হয়ে উঠে।

এ পরিস্থিত উত্তরণে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহকে একটি শৃঙ্খলায় নিয়ে আনতে উদ্যোগ নিয়েছে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়। ২০১১ সালের বিধিমালায় বিদ্যালয়ের নিবন্ধন ও পাঠদানের অনুমতির জন্য মন্ত্রণালয় পর্যন্ত ধর্না দিতে হতো। সংশোধিত বিধিমালায় এটি সহজ করে মাঠ পর্যায়ে নিয়ে আসার প্রস্তাব করা হয়েছে। প্রস্তাবিত বিধিতে নির্ধারিত ফরমে পাঠদানের অনুমতির জন্য উপজেলা শিক্ষা অফিসারের নিকট আবেদন করতে হবে। তিনি যাচাই-বাছাই করে আবেদন জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারের নিকট প্রেরণ করবেন। জেলা পর্যায় থেকে পাঠদানের অনুমতি প্রদান করা হবে। মেট্রোপলিটন এবং অন্যান্য বিভাগীয় শহরে পাঠদানের অনুমতির জন্য ৫ হাজার টাকা, জেলা শহরের জন্য ৩ হাজার টাকা, উপজেলা পর্যায়ে ২ হাজার টাকা। পাঠদানের প্রাথমিক মেয়াদ হবে এক বছর।

নিবন্ধনের জন্য নির্ধারিত ফরমে সংশ্লিষ্ট উপজেলা/থানা শিক্ষা অফিসারের নিকট আবেদন করতে হবে, তিনি  বিধি মোতাবেক আবেদন যাচাই-বাছই করে নিবন্ধনের যোগ্য মনে করলে জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারের নিকট প্রেরণ করবেন। জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার সরেজমিনে তদন্ত করে যথোপযুক্ত মনে করলে সুপারিশ নিবন্ধন কর্তৃপক্ষের নিকট প্রেরণ করবেন। নিবন্ধন কর্তৃপক্ষ হবেন বিভাগীয় উপপরিচালক। নিবন্ধনের মেয়াদ হবে ৫ বছর। নিবন্ধনের জন্য মেট্রোপলিটন ও বিভাগীয় শহরে ১৫ হাজার টাকা, জেলা শহরে ১০ হাজার টাকা এবং উপজেলা পর্যায়ে ৮ হাজার টাকা ফি দিতে হবে। প্রস্তাবিত সংশোধিত বিধিমালায় ৩৪ টি অনুচ্ছেদ রয়েছে।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা সচিব ফরিদ আহাম্মদ জানান, সময়ের পরিবর্তিত চাহিদানুসারে ২০১১ সালের বিধিমালাকে সংশোধনের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। এটি অনুমোদিত হলে বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়সমূহকে একটি শৃংখলায় নিয়ে আসা সম্ভব হবে। নিবন্ধন ও পাঠদান প্রক্রিয়া সহজ ও স্বাচ্ছন্দ্যময় করা হয়েছে। এ বিধিমালা একটি শিক্ষাবান্ধব পরিবেশ তৈরি করবে বলে তিনি আশাবাদী।

- Advertisement -spot_img

আরো পড়ুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisement -spot_img

সর্বশেষ খবর