Tuesday, March 5, 2024

বরিস জনসনের ঋণের বলি বিবিসি চেয়ারম্যান

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক: সাবেক ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনের জন্য ব্যাংক ঋণে মধ্যস্থতা করতে অনিয়মের আশ্রয় নেওয়ার অভিযোগ ওঠায় পদত্যাগ করেছেন বিবিসির চেয়ারম্যান রিচার্ড শার্প।

এক তদন্ত প্রতিবেদনে অনিয়মের বিষয়টি উঠে আসার পরে আজ শুক্রবার তিনি পদত্যাগের ঘোষণা দেন। কমিশনার ফর পাবলিক অ্যাপয়েন্টমেন্টের ওই তদন্তের নেতৃত্ব দিয়েছেন অ্যাডাম হেপিনস্টল কেসি নামের একজন আইনজীবী। খবর- বিবিসি ও এনডিটিভি।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির স্বার্থকে অগ্রাধিকার দিতে পদত্যাগ করছেন উল্লেখ করে রিচার্ড বলেছেন, সচেতনভাবে এই অনিয়ম তিনি করেননি। এটি ছিল একটি ‘অনিচ্ছাকৃত ভুল’।

তিনি বলেছেন, আমি মনে করি, (উদ্ভূত পরিস্থিতিতে) আমার মেয়াদ শেষ না হওয়া পর্যন্ত এই পদে থাকলে তা বিভ্রান্তিকর হতে পারে।

অভিযোগ রয়েছে জনসনকে প্রায় ৮০ হাজার পাউন্ড ঋণ নিতে সাহায্য করেছিলেন তিনি। সেই ঋণ পাওয়ার পরেই দ্রুত বিবিসির চেয়ারম্যান পদে নিযুক্ত হন রিচার্ড।

বিবিসি যখন কোনো চেয়ারম্যান নিয়োগ করে, তখন তার মনোনয়ন আসে সরকারের তরফ থেকে। কিন্তু একটি বোর্ডের কাছে ওই ব্যক্তিকে সমস্ত তথ্য জানাতে হয়। সরকারের সঙ্গে তার সম্পর্কের বিষয়টি স্পষ্ট করে জানাতে হয়।

রিচার্ড যখন চেয়ারম্যান হন, তখন তিনি ঋণের বিষয়টি সম্পূর্ণ আড়ালে রেখেছিলেন। আর সেটিই তার দোষ বলে মনে করা হচ্ছে। যে কারণে, বিরোধীরা দাবি তুলেছিল, যত দ্রুত সম্ভব শার্পকে পদত্যাগ করতে হবে।

এ বিষয়ে মুখ খোলেননি বরিস জনসন।

- Advertisement -spot_img

আরো পড়ুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisement -spot_img

সর্বশেষ খবর